অঝোরে কাঁদলেন তাসকিন

2
203

২০১৫ সালের অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দলের অন্যতম পেসার ছিলেন তরুণ তাসকিন আহমেদ। কিন্ত ৪ বছর পর আরেকটি বিশ্বকাপে আগের চেয়ে পরিণত সেই তাসকিনের জায়গা হলো না এবারের বিশ্বকাপ দলে।

 

অবশ্য এজন্য নির্বাচকদের যতটা না দোষ দিবেন তিনি, তার চেয়ে ভাগ্যকে দুষতে পারেন এই গতি তারকা। কারণ, বিপিএলে দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের সুবাদে তাকে নিউজিল্যান্ড সফরে দলে রেখেছিলেন নির্বাচকরা। কিন্তু সেই বিপিএলের শেষ দিকে চোট পাওয়ায় নিউজিল্যান্ড সফরের দল থেকে বাদ পড়েন তাসকিন আহমেদ। চোটের সঙ্গে লড়াইয়ে জিতে মাঠে ফিরলেও তার ফিটনেস নিয়ে সন্তুষ্ট নন নির্বাচকরা। তাই জায়গা মেলেনি এই তরুণ পেসারের। এ বিষয়ে সাংবাদিকরা তাসকিনের তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া জানতে চেয়েছিলেন। কিন্তু সেখানে সৃষ্টি হয় এক আবেকঘন পরিবেশের। স্কোয়াডে না থাকার কষ্ট আর আবেগ লুকাতে পারলেন না এই পেসার। কাঁদলেন অঝোরে! পুরোটা সময়ই কেঁদেছেন। যে দু’একটা কথা বলেছেন তার চেয়েও যেন বেশি কেঁদেছেন তিনি। তাসকিন বলেন, সামনে আরও সুযোগ আছে। আমি চেষ্টা চালিয়ে যাব। আরও ভালো করে খেলার চেষ্টা করবো। এসময় সাংবাদিকরা প্রশ্ন করেন, আপনাকে তো অন্তত ত্রিদেশীয় সিরিজে একটা সুযোগ দিয়ে দেখতে পারতো ফিটনেস ঠিক আছে কিনা? জবাবে কান্নাজড়িত কণ্ঠে তাসকিন বলেন, সবাই যেটা ভালো মনে করেছেন-সেটাই করেছেন। এরপর সাংবাদিকরা আরও কিছু প্রশ্ন করেন। কিন্তু তাসকিন কাঁদতে কাঁদতে সেখান থেকে বিদায় নেন।

Print Friendly, PDF & Email

2 মন্তব্য

  1. তাসকিন হচ্ছে এ প্রজন্মের উৎসাহ, আর খেলায় তো হারজিত থাকবে, এ বছর হয়নি তো কি হয়েছে আগামীতে হবে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

ten + 18 =