ইটিপি বাস্তবায়ন করে হালদার প্রতি দরদি হতে হবে

0
492

বর্ষার শুরুর সাথে সাথে হাটহাজারীর ১১ মাইল এলাকার পিকিং পাওয়ার প্লান্টের বর্জ্য ও পোড়া ফার্নেস অয়েল ছেড়ে দেয়া হয়েছে পাশের মরা ছড়ায়। যা পানির স্রোতের সাথে বয়ে যাচ্ছে হালদায়। এভাবে হালদায় পোড়া তেল ছাড়ার ফলে হালদার পরিবেশ প্রতিবেশ হুমকির মুখে। খবর পেয়ে হাটহাজারী ইউএনও রুহুল আমিন সোমবার(৮জুলাই) সকালে নিজে সংশ্লিষ্ট এলাকা পরিদর্শন করেন।

ইউএনও রুহুল আমিন বলেন,আমি এখন ১১ মাইল। আমি বিদ্যুৎ চাই হালদাও চাই। এভাবে হালদা দূষণ করে বিদ্যুৎ উৎপাদন হালদাকে শেষ করে দিবে। ইটিপি বানানোর কথা। সেটাও নাই। বৃষ্টি মানেই হালদায় বর্জ্য ফেলে দেয়া।

রাতের অন্ধকারে প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে হালদায় পোড়া ফার্নেস ওয়েল ছেড়ে দিলে ইউএনও একা ঠেকাতে পারবেনা। ইটিপি বাস্তবায়ন করে হালদার প্রতি দরদি হতে হবে। পরিবেশ অধিদপ্তর কে লিখিতভাবে জানানো হবে। এরকম নির্বিকার হবার সুযোগ নাই।বিদ্যুৎ ও হালদা দুইটাই চাই।

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

five × 3 =