সরকারী প্রাইমারী স্কুলের জায়গা দখল করে রাস্তা তৈরী

0
114

গাজীপুর জিলার টংগী থানার অন্তর্গত বনমালা সরকারী প্রাইমারী স্কুলের সামনের রাস্তা সংস্কার এর কাজ চলছে। সিটিকরপোরেশন এর মাপ ও প্ল্যান অনুযায়ী রাস্তার দক্ষিন পাশে বানানো হচ্ছে পয়ঃনিষ্কাসনের জন্য ড্রেন। অতীব দুঃখের বিষয় যে, সিটিকরপোরেশ্ন এর মাপ ও প্ল্যান অনুযায়ী ড্রেন করলে স্কুলের দক্ষিনের ২/৩ টি বাড়ির প্রায় ২ ফুট জায়গা রাস্তার অন্তর্ভুক্তি করতে হয় বিধায় নিয়ম বহির্ভুত ভাবে বাড়ির মালিকদের স্বার্থে বাড়ির জায়গা ছেড়ে দিয়ে রাস্তার মাপ ঠিক রাখার জন্য স্কুলের জায়গা দখল করে রাস্তা তৈরীর পায়তারা চলছে। এই অবৈধ কাজের বাস্তবায়ন করতে ইতপুর্বে প্ল্যান বহির্ভুত প্রায় ২ ফুট জায়গা বাড়ির দিক থেকে ছড়ে দিয়ে স্কুলের দিকে চাপিয়ে নিয়ে ড্রেন তৈরী করা হয়ে গেছে।এখন বাকী আছে শুধু স্কুলের জায়গা দখল করার। জানা গেছে যে, এখানে বাড়ির মালিকদেরকে অবৈধ সুযোগ করে দিয়ে স্কুলের জায়গা দখল করে ড্রেন ও রাস্তা তৈরীর কাজে সার্বিক সহযুগীতা করে যাচ্ছেন অত্র এলাকারই এক হাজী সাহেব ও তার এক শালা এবং ছাত্রলীগের এক পাতি নেতা। তবে হাজী সাহেবের নিজের ছোট ভাইয়ের কারনে চুপেচাপে তা শেষ করতে পারে নাই এই কাজ। কারন ঐ ছোট ভাইয়ের সমর্থনে আছে অত্র এলাকার জনগন স্বয়ং মেয়র মহোদয় জনাব জাহাংগীর আলম।

বিষয়টি জানাজানি হয়ে গেলে মেয়র মহোদয় জনাব জাহাংগীর আলম দুই দুই বার অত্র এলাকা ভিজিট করেছেন। এবং তিনি প্রত্যেকবার বলে গিয়েছেন যে, কোন ধরনের অনিয়ম যেন নাহয় এখানে।বরং যা কিছু হবে নিয়মের ভিতরেই হবে। কিন্তু তাহলে এলাকাবাসীর প্রশ্ন হলো যে নিয়ম মানতে হলে তৈরীকরা ড্রেন কি তাহলে ভেংগে দিয়ে আবার বানানো হবে ? না কি ঐ ভাবেই থাকবে । এলাকাবাসীর প্রশ্ন হলো যে ,

যদি ড্রেন ভাংগা না হয় তাহলে কি মেয়র মহোদয় কি উক্ত ৩ ব্যক্তির কাছে জিম্মি হয়েই থাকবেন ? এলাকাবাসীর আরেকটি প্রশ্ন হলো যে, সিটিকরপোরেশনের ইঞ্জিনিয়ার এবং প্রজেক্ট ইঞ্জিনিয়ারদের কি স্বার্থ আছে যে, তারা মেয়র মহোদয়ের এবং এলাকাবাসীর বিরুধিতা করে নিয়মবহির্ভুত ভাবে উক্ত ৩ ব্যক্তির ইশারায় ২/৩ টি পরিবারকে সুযোগ দিয়ে যাচ্ছে।

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

four × five =