দুদকের চোখে কালো চশমা, কনস্টেবল সুমন বহাল তবিয়তে

0
298

 ধামরাই প্রতিনিধি: ঢাকার ধামরাই উপজেলার সানোড়া গ্রামে রিয়াজ উদ্দিনের ছেলে পুলিশ কনস্টেবল সুমনেরপাহাড় পরিমান অবৈধ সম্পদের খোঁজ পাওয়ার পরে ও সে বহাল তবিয়তে রয়েছে।

জানাগেছে, ধামরাই উপজেলার সানোড়া গ্রামে দরিদ্র্র পরিবারে সন্তান কনস্টেবল সুমন হঠাৎ পাহাড় পরিমান অবৈধ সম্পদের মালিক বনে যাওয়ায় বিভিন্ন অভিযোগের কারনে পুলিশ হেডকোর্টার থেকে পুলিশের এস বি গোয়েন্দা সংস্থার কাছে তদন্তের জন্য দিলে কনস্টেবল সুমনের অবৈধ সম্পদের খোঁজ পেয়ে (এস বি) সঠিক প্রতিবেদন প্রদান করে পুলিশ হেডকোয়ার্টারসে। অধৈ সম্পদের সঠিক তথ্য পেয়ে ও পুলিশের উর্ধত্বন কতৃপক্ষ কোন ব্যাবস্থা না নেওয়ার কারনে সে এখনও বহাল তবিবয়তে থেকে সে দুর্নীতি অনিয়ম চালিয়েই যাচ্ছে। সেই কনেষ্টবল সুমন এখন হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক বনে যাওয়ায় এলাকায় জন মনে এখন প্রশ্নের সম্মুখিন হচ্ছে।

চতুর এই কনেষ্টবল সুমন তার প্রায় অবৈধ সম্পদ তার ভাই, বোন, স্ত্রী ও ছেলে মেয়ের নামে লিখে দিয়েছেন যাতে সে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদকের) হাতে ধরা না পরে। এখন ও গোপনে প্রতি দিন সকাল বিকাল তরুন তরুনীরা চাকরির আশায় সানোড়া গ্রামে কনেষ্টবল সুমনের বাড়ীতে ভীর জমাচ্ছে সুমনের ভাই নাজিমুদ্দিনের কাছে।

১০/১২ লাখ টাকার বিনিময়ে পুলিশ কনেষ্টবলে চাকরি দিচ্ছে এই সুমন চক্ররা। সুমনের ভাই ভাতিজা মিলে ৬ জন সরকারী চাকুরি হয়েছে ওই দুর্নীতি চক্রের ম্যাধমে। দুর্নীতি দর্মন কমিশন (দুদক) সঠিক তদন্ত করলেই বের হয়ে আসবে সুমনের দুর্নীতির আসল থলের বেড়াল।  

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

fifteen + 19 =