🕋জান্নাতে প্রাসাদ পাওয়ার নির্বাচিত ৫ টি আমল

0
446

১// আয়িশাহ (রাঃ) হতে বর্ণিত।তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ (সাঃ) বলেছেন যে ব্যক্তি কাতারের ফাঁকা জায়গা বন্ধ করে, এর মাধ্যমে আল্লাহ তার মর্যাদা বাড়িয়ে দেন এবং তার জন্য জান্নাতে একটি ঘর নির্মাণ করেন।

🌴তাবারানি আসওয়াত–৫৯৫৯(শব্দাবলী তার),

🌿মাজমাউয যাওয়ায়িদ হা/২৫০২,

🍁সহীহ আত তারগীব হা/৫০২,

☑️তাহক্বীকঃশায়ক আলবানী হাদীসটি কে সহীহ্ লিগাইরিহি বলেছেন।।

২// উম্মে হাবীবা (রাঃ) থেকে বর্ণিতঃ নবী (সা:) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, যে ব্যক্তি দিবা-রাত্রে বার রাকআত (সুন্নাত মুওয়াক্কাদার) সালাত আদায় করবে, তার জন্য জান্নাতে একটি ঘর বানানো হবে।

🍁সুনানে আন-নাসায়ী–১৮০৪

☑️হাদিসের মান: সহিহ হাদিস।

৩//মুআয বিন আনাস (রাঃ) থেকে বর্ণিতঃ নবী (সাল্লাল্লাহু ‘আলাইহি ওয়াসাল্লাম) বলেন, “যে ব্যক্তি ‘ক্বুল হুঅল্লা-হু আহাদ’ শেষ পর্যন্ত ১০ বার পাঠ করবে, আল্লাহ সেই ব্যক্তির জন্য জান্নাতে এক মহল নির্মাণ করবেন।” এ কথা শুনে উমার বিন খাত্ত্বাব (রাঃ) বললেন, ‘তাহলে আমরা বেশি বেশি করে পড়ব হে আল্লাহর রসূল!’ রাসূলুল্লাহ (সাঃ) বললেন, “আল্লাহও বেশি দানশীল ও বেশি পবিত্র।” (আহমাদ ১৫৬১০, প্রমুখ, সিলসিলাহ সহীহাহ ৫৮৯)

🌴হাদিস সম্ভার-১৪৪৮

☑️হাদিসের মান: সহিহ হাদিস।।

৪// আবু দারদা (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসুলুল্লাহ (সাঃ) বলেছেনঃ যে ব্যক্তি দু’রাকআত যুহার সালাত আদায় করবে, তাকে গাফেল লোকদের মধ্যে গণ্য করা হবে না। আর যে ব্যক্তি চার রাকআত আদায় করবে, তাকে আবেদ (ইবাদত গুজারীদের অন্যতম)  গণ্য করা হবে। আর যে ব্যক্তি ছয় রাক’আত সালাত আদায় করবে, তা তার ঐ দিনের জন্য যথেষ্ট হবে। আর যে ব্যক্তি আট রাক’আত আদায় করবে, আল্লাহ তাকে অনুগত বান্দাদের অন্তর্ভুক্ত করবেন। আর যে ব্যক্তি বারো রাক’আত সালাত আদায় করবে, আল্লাহ তার জন্য জান্নাতে একটি ঘর নির্মাণ করবেন।

🌴সহীহ আত তারগীব–৬৭১ ও ৬৭২।

🌿মাজমাউয যাওয়ায়িদ গ্রন্থে–৩৪১৯

☑️মানঃ হাসান হাদিস।

৫// আব্দুল্লাহ বিন আমর (রাঃ) থেকে বর্ণিতঃ

নবী (সাল্লাল্লাহু ‘আলাইহি ওয়া সাল্লাম) বলেন, “জান্নাতের মধ্যে এমন একটি কক্ষ আছে, যার বাহিরের অংশ ভিতর থেকে এবং ভিতরের অংশ বাহির থেকে দেখা যাবে।” তা শুনে আবূ মালিক আশআরী (রাঃ) বললেন, ‘সে কক্ষ কার জন্য হবে, হে আল্লাহর রসূল?’ তিনি বললেন, “যে ব্যক্তি উত্তম কথা বলে, অন্নদান করে ও লোকেরা যখন ঘুমিয়ে থাকে তখন (তাহাজ্জুদ) নামাযে রত হয়; তার জন্য।”

🌴আহমাদ ৬৬১৫,

🌴ত্বাবারানী ৩৩৮৮,

🌴হাকেম ২৭০, ১২০০,

🌴শুআবুল ঈমান বাইহাক্বী ৩০৯০,

🌿 সহীহ তারগীব ৬১৭নং

🌿হাদিস সম্ভার-৭৮৮

✅হাদিসের মান: সহিহ হাদিস।

🌍 কপি ও শেয়ার করুনঃ

🍁 রসূলুল্লাহ (সাঃ) বলেছেনঃ যে লোক সঠিক পথের দিকে ডাকে তার জন্য সে পথের অনুসারীদের প্রতিদানের সমান প্রতিদান রয়েছে। এতে তাদের প্রতিদান হতে সামান্য ঘাটতি হবে না—🌴মুসলিম-৬৬৯৭ (সহীহ)

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

eight + 2 =