কিশোরগঞ্জে জামাই-শাশুড়ীর গোপন কথা ধরা পড়লো দিন ১২টার বেলা

0
773

মিজানুর রহমান, কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী) হইতে ঃ
নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার মাগুড়া ইউনিয়নের  সিঙ্গেরগাড়ী পশ্চিমপাড়ার প্যালকা মিয়ার স্ত্রী বাচ্ছানী বেগমের সাথে জামাতা রাজ্জাকুল ইসলামের আসামাজিক কার্যকলাপে এলাকাবাসী অতিষ্ট। জানা যায, বাচ্ছানী বেগমের মেয়ের সাথে প্রতিবেশি মহিরের পুএ রাজ্জাকুলের সাথে১০/১২ বছর পূর্বে ইসলামী শরীয়া মোতাবেক বিবাহ হয়। তাদের ১০/১২ বছরের সাংসারিক জীবনে কোন সন্তানাদী না হওয়ায় শাশুড়ী তার জামাতা রাজ্জাকুলের সাথে দৈহিক সম্পর্ক গড়ে তোলে। ঘঁনার সময় জামাই শাশুড়ীর সাথে ধস্তা-ধস্Íি করে শাশুড়ীর পেডিকোট(শায়া) ছিরে ফেলে। শাশুড়ী বড় গলায় গালি গালাজ করে। প্রতিবেশিরা চিৎকার চেচা-মেছি শুনতে পেয়ে ভাতিজী বউ ময়না, ফেনসিসহ অনেকেই ঘটনা স্থলে ছুটে আসলে রাজ্জাকুল ক্ষিপ্ত হয়ে টিনের বেড়া ভেঙ্গে ফেলে। উপস্থিত বাইরের  লোকদের অস্লিল ভাষায়  গালি-গালাজ করে। এ ব্যাপারে বাচ্ছানী বেগমের সাথে কথা বলে জানা যায়, ঘটনা মিথ্যা। তবে পেডিকোট ছিড়ার বিষয় জানতে চাইলে কোন সদুুত্তর দিেেত পারেনি। এ ব্যাপারে জামাই রাজ্জাকুলের সাথে বারবার দেখা করার চেষ্টা করলে ও তার পাত্তা পাওয়া যায় নাই। ওই এলাকার রেয়াজ উদ্দিন, হাসিবুল, অলিয়ার, হোসেন আলী সাবেক মেম্বার, আব্দুর রহমান, মাহাবুলের সাথে কথা বলে জানা যায়, যতটা  রটে, পুরোটাই বটে। বর্তমান ইউপি মেম্বার আইয়ব খান বলেন, আমি শুনেছি সত্য- মিথ্যা জানিনা। কিশোরগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ বজলুর রশিদ বলেন, এ বিষয়ে অভিযোগ পেলে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Advertisement
Advertisement

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here